বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০২:২৮ অপরাহ্ন

নোটিশ :
বাউফল নিউজ ওয়েবসাইটে আপনাদের স্বাগতম
ত্বক ফর্সা করা কি সম্ভব

ত্বক ফর্সা করা কি সম্ভব

আজকাল নানা চটকদার বিজ্ঞাপন, প্রচারনা দেখে বেশীরভাগ নারী-পুরুষ, তরুণী-ছাত্রীরা নানা ভাবে বিভ্রান- হচ্ছেন। অনেকে প্রশ্ন করেন ডাক্তার সাহেব ত্বক কি ফর্সা করা যায়। তাদের যুক্তি হচ্ছে টেলিভিশনে একাধিক লেজার সেন্টার ও এসথেটিক সেন্টার থেকে বলা হয় ত্বক ফর্সা করার যাদু আছে তাদের কাছে। আসলে এ ব্যাপারে আমার কাছে কোন সদুত্তর একেবারেই নেই। সমপ্রতি আমি এবং আমার বস দেশের স্বনামধন্য চর্মরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক এম ইউ কবীর চৌধুরী গিয়েছিলাম বিশ্বের সবচেয়ে বড় ডার্মাটোলজি কনফারেন্স ‘আমেরিকান একাডেমী অব ডার্মাটোলজি মিটিং-এ’। পাঁচ দিনব্যাপী এই বিশাল কনফারেন্সে সারা বিশ্ব হতে ৫০ সহস্রাধিক বিশেষজ্ঞ ও অন্যান্য পেশার লোকজন অংশ নেন। এই কংগ্রেসে বিশ্বের বড় বড় লেজার কোম্পানীগুলোও অংশ নেয়। ব্যক্তিগতভাবে আমার খুব ইচ্ছা ছিলো লেজার বা অন্যকোন টেকনোলজির মাধ্যমে ত্বক ফর্সা করা যায় কিনা তার খোজ নেয়া। সত্যিকথা বলতে ডার্মাটোলজিস্টদের সবচেয়ে বড় এই সম্মেলনে কোথাও একটি পেপারও পড়া হয়নি ত্বক ফর্সা করা নিয়ে। অধ্যাপক এম ইউ কবীর চৌধুরী স্যার এবং আমি যুক্তরাষ্ট্রের মায়ামীর সবচেয়ে বড় লেজার এন্ড কসমেটিক সেন্টারটিও ভিজিট করি। কোথাও ত্বক ফর্সা করার ব্যবস্থা নেই। তাহলে আমরা কতিপয় মুনাফালোভী চিকিৎসক লেজারের নামে কি দেশের সরল প্রাণ মানুষের সঙ্গে প্রতারণা। করছি। কে দেখবে এই প্রতারণার বিষয়টি। এর আগে গত বছর আমি এবং অধ্যাপক এম ইউ কবীর চৌধুরী বার্লিনে গিয়েছিলাম ইউরোপিয়ান একাডেমী অব ডার্মাটোলজি কংগ্রেসে। সেখানেও ত্বক ফর্সা করার কোন টেকনোলজি দেখলামনা। বার্লিন যাবার পথে ইটালির পর্যটন শহর বার্গামোতে একটি লেজার সেন্টার পরিদর্শন করি আমরা। সেখানেও ত্বক ফর্সা করার কোন ব্যবস্থা নেই। এ ছাড়া গত বছর আমি এবং অধ্যাপক কবীর চৌধুরী অংশ নেই দুবাই ডার্মাতে। আমরা দু’জনে একাধিকবার অংশ নিয়েছি সিঙ্গাপুর ডার্মাটোলজি আপডেট-এ। আমি নিজে ডার্মাটোলজিতে পোস্ট গ্রাজুয়েশন করার সময় সিঙ্গাপুরের সবচেয়ে বড় স্কিন এন্ড কসমেটিক সেন্টারে ছিলাম প্রায় এক বছর। পরবর্তীতে যুক্তরাষ্ট্রে চলে যাই লেজার এন্ড কসমেটিক ডার্মাটোলজিতে ফেলোশীপ করতে। কোথাও ত্বক ফর্সা করার ব্যবস্থা চোখে পড়েনি। অনেক কৌতুহল থাকা সত্বেও ত্বক ফর্সা করার এ অপবিদ্যাটি রপ্ত করতে পারিনি। যাহোক এ দেশে অন্যরা কিভাবে ত্বক ফর্সা করে তার তথ্য আমার কাছে নেই। তবে যারা ত্বক ফর্সার নামে অপচিকিৎসা বা ভূল চিকিৎসায় মুখের ত্বক ক্ষতিগ্রস- করেন তাদের অনেকে আমার কাছে আসেন।

যাহোক, আমাদের জানতে হবে মানুষের ত্বক কালো বা ফর্সা হয় কেন। আমাদের ত্বকে মেলানিন নামে এক ধরনের পদার্থ রয়েছে। এই মেলানিনই আমাদের ত্বকের রং নির্ধারণ করে। যাদের শরীরে মেলানিন যতবেশী তাদের ত্বক তত কালো। আর শরীরের এই মেলানিন কমানোর কোন চিকিৎসা বা ওষুধ এখনো পর্যন- তৈরী হয়নি। অন-ত: সাইন্টিফিক্যালি কেহ দাবী করেননি তারা ত্বক ফর্সা করার ওষুধ আবিষ্কার করেছেন। তাহলে প্রশ্ন আসে বাজারে অনেক ধরণের ক্রিম বা লোশন পাওয়া যায়। এসবের মাধ্যমে ত্বক কিভাবে ফর্সা হয়। এসব নিয়ে আমরা আগামীতে ধারাবাহিকভাবে লিখবো। আজ শুধু লেজার সেন্টার ও এসথেটিক সেন্টার সমূহের ত্বক ফর্সা করার বিষয় নিয়ে লিখছি। আজকাল অনেক বিউটি পারলার থেকে দাবী করা হয় তারা ত্বক ফর্সা করে থাকেন। আমি আগেই বলেছি আমরা যাকিছু বলবো বা করবো তার সাইন্টিফিক ব্যাখ্যাসহ রোগীদের বা সৌন্দর্য প্রিয়দের বোঝাতে হবে। ব্যবহৃত টেকনোলজি এবং কেমিক্যাল উপাদান কিভাবে কাজ করে তারও ব্যাখ্যা থাকতে হবে। তবে যদি কেউ বলেন, ত্বক উজ্জল করা যায়, মুখের কমপ্লেক্সশন ভালো করা যায়, এ বিষয় নিয়ে আমি আপত্তি করিনা। ত্বক উজ্জল তিন ভাবে করা যায়। যেমন: লেজার ব্রাইটেনিং, কেমিক্যাল ব্রাইটেনিং এবং কসমেটিক ব্রাইটেনিং। তবে এ ক্ষেত্রে সৌন্দর্য পিয়াসীদের অবশ্যই বলতে হবে এ ধরনের ব্রাইটেনিং অত্যন- সাময়িক। স্থায়ী কোন ব্রাইটেনিং পদ্ধতি নেই। যারা সাময়িক ভাবে ত্বক ব্রাইট বা উজ্জ্বল করতে চান তাদের ক্ষেত্রে বলবো অবশ্যই জেনে নেবেন কি দিয়ে ব্রাইটেনিং করা হচ্ছে। কতদিন সময় লাগবে এবং কত টাকা খরচ পড়বে এবং সর্বোপরি কতদিন ত্বকের এই উজ্জ্বলতা থাকবে, এসব না জেনে কোথাও প্রতারণার ফাঁদে পা দেবেন না। রোগী হিসাবে ডাক্তারের কাছে যে কোন প্রশ্ন করার এখতিয়ার আপনার আছে। ডাক্তার আপনার সব কথা শুনতে বাধ্য। এছাড়া রোগী হিসাবে আর একটি প্রশ্ন অবশ্যই করবেন ডাক্তার সাহেব নিজে চিকিৎসা বা লেজার ব্যবহার করবেন না তার অ্যাসিসট্যান্টকে দিয়ে কাজটি করাবেন। এসব মৌলিক প্রশ্ন জানার অধিকার রোগীর অবশ্যই রয়েছে।

ডাঃ মোড়ল নজরুল ইসলাম
চর্ম, এলার্জি ও শারীরিক মিলন সমস্যা বিশেষজ্ঞএবং লেজার এন্ড কসমেটিক সার্জন।
সহকারী অধ্যাপক, গণস্বাস্থ্য নগর
হাসপাতাল, ধানমন্ডি, ঢাকা।

নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2018 Bauphalnews.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com